গোপালদীতে বন্ধুকে গলাকেটে হত্যা, আদালতে আসামির স্বীকারোক্তি

0
4980

মাসুম বিল্লাহ: নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে বন্ধুকে গলাকেটে হত্যার ঘটনায় আদালতে স্বীকারোক্তি দিয়েছেন ঘাতক বন্ধু।
বৃহস্পতিবার (১৩ আগস্ট) বিকেলে নারায়ণগঞ্জ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট নুরুন্নাহার ইয়াসমিনের আদালতে আসামির ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি রেকর্ড করা হয়।
এর আগে বুধবার (১২ আগস্ট) দিবাগত রাতে আড়াইহাজার থানা পুলিশ উপজেলার গোপালদী বাজার থেকে হত্যা মামলার আসামি শুভ রায়কে (২০) গ্রেফতার করে। গ্রেফতারকৃত শুভ রায় কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার লাজৈর গ্রামের শংকর চন্দ্র রায় এর ছেলে। সে তার মামা বাড়ি উপজেলার উলুকান্দি গ্রামে থাকতো।
গোপালদী তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ পরিদর্শক আজাহার আমাদের আড়াইহাজার অনলাইনকে জানান, উপজেলার দড়িবিশনন্দী গ্রামের সাইফুল নামের এক যুবকের লাশ বুধবার বিকালে গোপালদী মসজিদ মার্কেটের ছাদ থেকে উদ্ধার করা হয়। পরে ওই রাতেই তার বোন লিজা বাদী হয়ে অজ্ঞাত ব্যক্তিদের আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করেন। পুলিশ সন্দেহভাজন আসামি শুভ রায়কে গ্রেফতার করলে জিজ্ঞাসাবাদের সে সাইফুলকে হত্যা করার কথা স্বীকার করেন।
আজাহার আমাদের আড়াইহাজার অনলাইনকে আরো জানান, নারী ঘটিত ব্যাপার নিয়ে দুই জনের মধ্যে দন্ধ চলছিল। এই নিয়ে মঙ্গলবার রাতে হত্যাকান্ড ঘটার আগে দুই বন্ধু এক সাথে নাস্তা করে। এরপর ছাদে নিয়ে কথা বলার এক পর্যায়ে ঘাতক শুভ সাইফুলকে ছুরি দিয়ে পেটে আঘাত করে। এতে নাড়িভুড়ি বের হয়ে গেলে শুভ সাইফুলকে জবাই করে গলা কেটে গেলে। পরে লাশ ছাদে ফেলে দিয়ে চলে আসে।
তিনি আমাদের আড়াইহাজার অনলাইনকে আরো জানান,ঘটনার দুই দিন আগে শুভ রায়  একটি ছোরা কিনে রাখে হত্যাকান্ড ঘটাবে বলে।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here