গণধিকৃত দল দিয়ে গণঅভ্যুত্থান সম্ভব নয় … পানি সম্পদ উপমন্ত্রী এনামুল হক শামীম

0
151

মাসুম বিল্লাহ: পানি সম্পদ উপমন্ত্রী এ কে এম এনামুল হক শামীম এমপি বলেছেন, আমি আসলাম আড়াইহাজারে কিন্তু আড়াইহাজারকে চেনাই আমার জন্য মুশকিল। কারন আজ থেকে ২০ বছর আগের আড়াইহাজার আর এখনকার আড়াইহাজার এক নয়। আমার গ্রাম আমার শহর শেখ হাসিনার সেই শ্লোগানকে বাস্তবায়িত করছেন আপনাদের নেতা নজরুল ইসলাম বাবু। রাস্তা-ঘাট, ভবন, শহীদ মিনার, লাইব্রেরী, ডাকবাংলা আছে। আমার এলাকায় ডাক বাংলা নেই কিন্তু আপনাদের এখানে জেলার চেয়েও সুন্দর উন্নত ডাক বাংলা আছে।

নজরুল ইসলাম বাবুর ছাত্র রাজনীতির গৌরবোজ্জ্বল ইতিহাস আছে। গ্রেনেড হামলায় সেদিন বাবু আমি সহ আমরা অনেকেই আহত হয়েছিলাম। শিকদার হসপিটালে চিকিৎসা নেয়ার পর আমরা ভারতের এ্যাপোলো হসপিটালে চিকিৎসা নিয়ে এসেছি। বাবুসহ আমাদের সবারই সেই গ্রেনেডের স্প্রিন্টার বয়ে বেড়াতে হবে। সেই নেতার হাতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী পতাকা তুলে দিয়েছেন আড়াইহাজারবাসীর খেদমত করার জন্য। তিনি রাস্তাঘাটের উন্নয়ন করছেন, কত সুশৃঙ্খল দল। তিনি মঙ্গলবার দুপুর ১২টায় আড়াইহাজার উপজেলা প্রশানের উদ্যেগে আয়োজিত পৌর সভার কোভিড ১৯ এ কর্মহীন, ক্ষতিগ্রস্থ, দুস্থ্য ও অসহায়পরিবারের মাঝে ত্রান সামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন। উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো: সোহাগ হোসেনের সভাপতিত্বে প্রধান আলোচক ছিলেন সংসদ সদস্য আলহাজ্ব নজরুর ইসলাম বাবু।

বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান মুজাহেদুর রহমান হেলো সরকার , আড়াইহাজার পৌর মেয়র আলহাজ্ব সুন্দর আলী  উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্ম কর্তকর্তা  আবু সাইদ মল্লিক প্রমুখ।

মন্ত্রী বলেন, আমাদের জেলা প্রশাসন পুলিশ প্রশাসন সহ আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ সহ সবাই করোনাকালে কাজ করে যাচ্ছে। একটি দল তার মহাসচিব টেলিভিশনে অনেক কথা বলে কিন্তু করোনার মধ্যে বাংলাদেশের কোথাও একদিনও বিএনপিকে দেখা যায়নি। যারা মানুষের বিপদে থাকে না তাদের বাংলায় রাজনীতি করার কোন অধিকার নেই। গনঅভ্যুত্থানের কথ বলেন মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। গণধিকৃত দল দিয়ে গণঅভ্যুত্থান সম্ভব নয়। বিএনপি আজকে গণধিকৃত দল। আপনাদের নেতা নেতৃদের পায়ের তলায় মাটি নেই। তারা দুর্নীতিতে নিমজ্জিত। বিরোধী দলে থেকে পেট্রোল বোমা দিয়ে মানুষ মেরেছেন। হাওয়া ভবন করে ওই তারেক জিয়ারা হাজার হাজার কোটি টাকা মানি লন্ডারিং করেছে। বাংলাদেশে গণঅভ্যুত্থান করবেন। গণঅভ্যুত্থান হয়েছিল ৬৯ এ বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে। পূর্ব বাংলার সাড়ে সাত কোটি মানুষ তার সাথে ছিল। গনঅভ্যুত্থান হয়েছিল ৯০ এ এবং ১৫ ফেব্রুয়ারির প্রহসনের নির্বাচনের পরে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে। গণঅভ্যুত্থান করতে সংগঠনের শক্তি লাগে মানুষের ভালবাসা লাগে জনগনের সম্পৃক্ততা লাগে। আপনাদের নেত্রী খালেদা জিয়া জেলে একদিন একটা বড় মিছিলও করতে পারলেন না। আপনারা গণঅভ্যুত্থানের ভয় দেখান।
মীর্জা ফখরুল সাহেব আওয়ামীলীগের শেকড় অনেক গভীরে। আওয়ামীলীগকে কেউ ইচ্ছে করলেই ধাক্কা দিয়ে ফেলতে পারবে না। অনুষ্ঠানটির সার্বিক সহযোগিতা করেন উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিস। উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো: সোহাগ হোসেন তার বক্তেব্য মন্ত্রী মহোদয়কে ধন্যবাদ জানান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here